নাইক্ষ্যংছড়ির বাইশারীতে উপ-জাতি’য় পল্লী গুদাম পাড়ায় কর্মহীন মানুষের মাঝে আওয়ামীলীগ সভাপতির মানবিক সহায়তা

0
140

আবদুর রশিদ নাইক্ষ্যংছড়ি বান্দরবান

বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারী ইউনিয়ন সদর অবস্থিত ৭ নং ওয়ার্ড পশ্চমি বাইশারীর উপজাতীয় পল্লী গুদাম পাড়া। সর্বমমোট ১৮ টি পরিবারের বসবাস। সকলেই মার্মা সম্প্রাদয়ের বৌদ্ব ধর্মের অনুসারী। ১৮ পরিবারের ছেলে সন্তান বউ বাচ্ছা নিয়ে শতাধিক লোকজন রয়েছেন বলে উক্ত পাড়ার মুরব্বী ক্যাভাই মারমা।
তিনি বলেন করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে পাড়ার সকলেই এখন কর্মহীন। সরকারের পক্ষ থেকে কোন ধরনের সহযোগিতা এই পাড়ার লোকজন পাই নাই। কথা গুলু বলার সময় চোখে মুখে হতাশার চাপ লক্ষ করা যায়।
বিষয়টি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি জাহাংগীর আলম বাহাদুর এর নজরে আসলে ১২ এপ্রিল রাতে চাউল নিয়ে ছুটে যান উপজাতীয় পল্লী গুদাম পাড়ায়। পরিবারের সকলকে মানবিক সহায়তা সরুপ তাৎক্ষনিক ১০ কেজি করে চাউল প্রদান করেন।
গুদাম পাড়ার বাসিন্দা আলং মারমা বলেন, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে লক ডাউনের পর থেকে আমরা এপর্যন্ত সরকারের পক্ষ থেকে কোন ধরনের সহযোগিতা পাই নাই এবং কোন জনপ্রতি নিধি খোজ খবর ও নেয়নি। গত কাল রাতে আওয়ামীলীগ সভাপতি জাহাংগীর আলম বাহাদুর এর পক্ষ থেকে কিছুটা সহায়তা পেয়ে আমরা খুশি।
জাহাংগীর আলম বাহাদুর জানান তিনি খবর পেয়ে মানবিক সহায়তায় এগিয়ে এসেছেন।
সারা দেশে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে কর্মহীন মানুষের জন্য সরকার প্রচুর পরিমান জেলা উপজেলা ইউনিয়ন পর্যায়ে বরাদ্দ দিয়েছেন।
কেন এই পাড়ার লোকজন বাদ পড়েছেন তা তিনি জানেননা।
স্থানীয়রা জানান পার্বত্য বান্দরবান জেলায় করোনাভাইরাস প্রতিরোধে কর্মহীন মানুষের জন্য জেলা প্রশাসক, জেলা পরিষদ, ও পার্বত্যমন্ত্রীর পক্ষ থেকে বিশেষ বরাদ্ব এসেছে।
তারপরও কেন গুদাম পাড়ার একজন ও সহযোগিতা পাই নাই। এপ্রশ্ন সকলের।
এবিষয়ে বাইশারী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আলম জানান ৭ নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্যকে উক্ত পাড়ার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। তাছাড়া ঐপাড়ার ৮ পরিবার বিভিন্ন সুবিধাভোগিতে রয়েছেন। তার পর ও বিষয়টি তিনি দেখছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here