মহেশখালীতে পরকিয়ার টানে সদ্য বিবাহিত স্ত্রী প্রেমিকের হাতধরে নগদ টাকা,স্বর্ণালংকার নিয়ে উধাও

0
443

 

মহেশখালী পৌরসভার ০৫ নং ওয়ার্ড ঘোনা পাড়ায় পরকীয়া প্রেমের টানে সদ্য বিবাহীত স্ত্রী স্বামীর টাকা
ও স্বর্ণালংকার নিয়ে সাবেক প্রেমিকের হাত ধরে পালানোর অভিযোগ ।

স্ত্রীকে ফিরিয়ে আনতে স্বামী বিভিন্ন এলাকায় ও থানার দ্বারে দ্বারে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

এ ঘটনায় প্রেমিকের নামে মহেশখালী থানায় অভিযোগ করেছেন।

থানায় দায়ের করা অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা
যায়-

মহেশখালী পৌরসভার, ৫ নং ওয়ার্ডের ঘোনা পাড়া গ্রামের আবদু শুক্কুরের মেয়ে কুলসুমা আক্তারের সাথে পৌরসভার ০৮ নং ওয়ার্ডের নাজমুল হকের পুত্র মোঃ ইকবালের সাথে গত ৫ ফেব্রুয়ারী ইসলামী শরিয়ত মোতাবেক বিবাহ হয়।

বিয়ের পর স্ত্রী কুলসুমা তার পিতার বাড়িতে বসবাস
করতো,কিছু দিনের মধ্যে বিবাহের অনুষ্ঠানে মাধ্যমে স্ত্রী কুলসুমাকে স্বামীর বাড়িতে নিয়ে আসার কথা ছিল।

কুতুবজোম খোন্দকার পাড়ার মৌলভী নুরুচ্ছফার পুত্র আরিফ উল্লাহর সাথে পূর্ব থেকে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে কুলসুমা।

আস্তে আস্তে পরকিয়া প্রেমের সম্পর্ক গভীর আকার ধারণ করে।

এর মধ্যে স্বামী ইকবালের বাড়িতে বিবাহের অনুষ্ঠানের দিনক্ষণ ঠিক হয়।

বিবাহ অনুষ্ঠানের একদিন আগে গত ০৮ ফেব্রুয়ারী সন্ধ্যায় নগদ টাকা,স্বর্ণালংকার নিয়ে কুতুবজোম খোন্দকার পাড়ার মৌলভী নুরুচ্ছফার পুত্র আরিফ উল্লাহর হাত ধরে কুলসুমা পালিয়ে যায়।

আরিফ উল্লাহ ইতিপূর্বে একধিক বিবাহ করে বলে বলে জানা যায়।

এ ঘটনায় কুলসুমার মা বাদী হয়ে গত ৯ ফেব্রুয়ারী ৩ জনকে আসামী করে মহেশখালী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

স্বামী ইকবাল জানান,আমার বউ কুলসুমা আমার দেওয়া স্বর্ণালংকার,কাপড়,টাকা নিয়ে পালিয়ে গেছে। আমি এখন দিশেহারা হয়ে পড়েছি।

আমার স্ত্রী ফেরত আসলে এখনও আমি তাকে গ্রহণ করবো।কেউ যদি আমার স্ত্রীকে আমার কাছে ফিরিয়ে দিতে পারেন তাহলে তাকে পুরস্কৃত করা হবে।

মহেশখালী থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আব্দুল হাই জানান,পালিয়ে যাওয়া স্ত্রীকে উদ্ধার ও আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here